Home / অপরাধ / দাকাপের বানিশান্তা ইউনিয়নের ভাজনখালীতে প্রতিপক্ষর হামলায় নারী-পুরুষসহ আহত ৪ আশংকাজনক১

দাকাপের বানিশান্তা ইউনিয়নের ভাজনখালীতে প্রতিপক্ষর হামলায় নারী-পুরুষসহ আহত ৪ আশংকাজনক১

মো:আল আমিন আলম দাকোপ থানা প্রতিনিধি:

দাকোপ উপজেলার বানিশান্তা ইউনিয়নের ভাজনখালী পল্লীতে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় নারী-পুরুষসহ ৪ জন গুরুতর রক্তাক্ত জখম হয়ে, উপজলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এ চিকিৎসাধীন রয়েছে। গুরুতর আহত কাজল বদ্যকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী নিজে  বাদী হয়ে প্রতিপক্ষের ৫ জনের নাম উল্লেখ করে থানায় এজাহার দাখিল করেন বলে জানাগেছে।

ভুক্তোভুগী ও এলাকাবাসী এবং থানায় দাখিল করা এজাহার সুত্রে জানাগেছে, উপজেলার বানিশান্তা ইউনিয়নের ভাজনখালী গ্রামের রাখাল চন্দ্র বদ্য’র পুত্র দুলাল চন্দ্র বদ্যর সাথে একই গ্রামের তারাপদ মিস্ত্রীর পুত্র বিধান মিস্ত্রী গংদের সাথে জমাজমি নিয়ে পূর্ব হতে বিরোধ চলে আসছিলো। সম্প্রতি ঘূর্ণিঝড় আম্পানে ভুক্তভাগী দুলাল বদ্যের ২টি ঘর ক্ষতিগ্রস্ত হয়। গত ৩ জুন বুধবার সকালে ক্ষতিগ্রস্ত ঘর ২টি সংস্কার করতে থাকা অবস্থায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে উল্লখিত বিধান মিস্ত্রীসহ ৪জন দেশীয় অস্ত্রসস্ত নিয়ে বাড়ীর মধ্যে প্রবেশ করে এলোপাতাড়ি মারপিট করে এবং ঘরবাড়ী ভাংচুর করে ক্ষতি করে।

এ সময় প্রতিপক্ষর আঘাতে গুরুতর আহত, রক্তাক্ত জখম হয়ে দুলাল বদ্যর স্ত্রী লক্ষ্মী বদ্য, কৃষ্ণপদ সরদার পুত্র অশাক সরদার, রমেশ বদ্যর স্ত্রী কাজল বদ্য, গুরুতর আহতর আত্মচিংকারে স্থানীয় এলাকাবাসী ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে তাদেরকে দাকোপ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। কর্তব্যরত চিকিৎসক কাজল বদ্যর মাথায় জখম হওয়ায় অবস্থার অবনতি দেখে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্ররণ করেছেন। উল্লেখ্য ঘটনায় সময় প্রতিপক্ষরা কাজল বদ্য’র শ্লীলতাহানী ঘটায় বলে ভুক্তভাগী দুলাল বদ্য জানায়। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত দুলাল বদ্য বাদী হয়ে বিধান মিস্ত্রী গংদের বিরুদ্ধে দাকোপ থানায় মামলা দায়ের করার  প্রস্তুতি চলছিলো বলে জানাগেছে।

About BD LIVE TV LTD

Check Also

করোনা সন্দেহে বাস থেকে ছুঁড়ে ফেলা হলো তরুণীকে, রাস্তায় মৃত্যু

  করোনাভাইরাসের সংক্রমণ থেকে নিজেকে ও পরিবারের সদস্যদের বাঁচানোর তাগিদে অচেনা মানুষের থেকে দূরে থাকতে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *